বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১, ১০:১০ পূর্বাহ্ন

ডোমারে দুই পক্ষের ঝগড়া থামাতে গিয়ে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু

ডোমারে দুই পক্ষের ঝগড়া থামাতে গিয়ে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু

এনপিনিউজ৭১/শাহজাহান আলী মনন/ ২৯ এপ্রিল রংপুর

দুই পক্ষের ঝগড়া থামাতে গিয়ে গাছের ডালের আঘাতে সুমন রহমান (২১) নামের এক যুবক মারা গেছে। নিহত সুমন জেলার ডোমার উপজেলার গোমনাতি ইউনিয়নের উত্তর গোমনাতি মাস্টারপাড়া গ্রামের হারুন-অর-রশীদের ছেলে এবং গোমনাতি কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থী।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়,  গোমনাতি ইউনিয়নের ১নং গোমনাতি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সম্প্রতি চট্টগ্রাম  ফেরত চারজন ব্যাক্তিকে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। পাশ্ববর্তী স্কুলপাড়া এলাকার জনৈক মালেক নামের এক ব্যাক্তি কোয়ারেন্টিনে থাকা লোকদের সাথে কথা বলে বাড়িতে ফিরছিলো। পথে সুরসুরী ব্রীজ এলাকায় রাকিব, মোরসালিন, সুলতান ও নাজিরুলসহ ক্যাম্পপাড়া এলাকার কয়েকজন যুবক মালেককে ঐ রাস্তা দিয়ে যেতে বাঁধা দেয়। এতে মালেকের সাথে ঐ যুবকদের বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এসময় পাশে মরিচ ক্ষেতে কাজ করছিলেন সুমন ও তার বাবা হারুন-অর-রশীদ। সুমন এসে তাদের ঝগড়া থামাতে বললে ক্ষিপ্ত হয়ে রাকিব সুমনের মাথায় গাছের ডাল দিয়ে আঘাত করে। এতে সুমন গুরুতর আহত হলে তাকে বোড়াগাড়ি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে রাতেই তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত ১১ টায় মারা যান।
এদিকে এ ঘটনায় ১৪ জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছে সুমনের বাবা হারুন-অর-রশীদ। এ ঘটনায় একজনকে আটক করেছে পুলিশ।
ঘটনা তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান ডোমার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তাফিজার রহমান। ক্যাম্প পাড়া ও স্কুল পাড়ার লোকজনের মধ্যে দীর্ঘদিন থেকে বিবাদ চলে আসছে বলেও জানান তিনি।
এনপি৭১/নীলফামারী

Please Share This Post in Your Social Media

Comments are closed.

© All rights reserved © 2020-21 npnews71.com
Developed BY Akm Sumon Miah