বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৪২ অপরাহ্ন

যৌতুকের টাকা না পেয়ে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা

যৌতুকের টাকা না পেয়ে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা

নিউজ ডেক্সঃ

পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে বানেসা বেগম (২২) নামে এক গৃহবধূকে মারপিট করে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় নিহত ওই গৃহবধূর বাবা ইয়াছিন আলী বাদী হয়ে থানায় ৩ জনের নামে মামলা দায়ের করেছে। এদিকে মামলার পরপরই পুলিশ প্রধান আসামী স্বামী শাহিন আলমকে আটক করেছে।

বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সকালে ১০ টায় আটোয়ারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে বানেসা।

ঘটনাটি ঘটেছে, পঞ্চগড় জেলার আটোয়ারী উপজেলার রাধানগর লক্ষিদাসী গুচ্ছগ্রাম এলাকায়।

থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ২০১৬ সালে শাহিনের সাথে পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয় গৃহবধূ বানেসার। বিয়ের সময় ছেলে পক্ষ যৌতুক হিসেবে ১ লক্ষ ২৮ হাজার টাকা নির্ধাণ করে দেয় কনের বাবা ইয়াছিনকে। দারিদ্র পরিবারে কোন মতে ১ লক্ষ ১০ হাজার টাকা অগ্রিম যৌতুক হিসেবে বিয়ের দিন দিতে পারলেও অভাব অনটনের সংসারে মেয়ের বিয়ের ৫ বছর পরেও বাকি ১৮ হাজার টাকা দিতে পারছিলো না বাবা ইয়াছিন।

এদিকে যৌতুকের বাকি ১৮ হাজার টাকা না পেয়ে বানেসার উপর শারিরিক ভাবে নির্যাতন শুরু করে স্বামী শাহিন। বিষয়টি ওই গৃহবধূর বাবা ইয়াছিন জানতে পারে। গত বুধবার (২৫ আগস্ট) যৌতুকের টাকা না পেয়ে শ্বশুর বাড়িতে আবারো বানেসাকে বেধরক মারপিট করা হয়।

এদিকে মারপিটের কারণে গুরুত্বর অসুস্থ্য হয়ে পড়লে শাহিন পরিবারের সদস্যদের নিয়ে বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সকাল ৭টায় আটোয়ারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করালে সকাল ১০টায়  চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করে বানেসা। খবর পেয়ে পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে প্ররণ করে।

আটোয়ারী থানার (ওসি) ইজার উদ্দীন জানান, এ ঘটনায় বিকেলে ওই গৃহবধূর বাবা ইয়াছিন আলী থানায় নারী নির্যাতনের ১১(ক) আইনে মামলা দায়ের করলে আসামী শাহিনকে আটক করা হয়। এদিকে মামলার অপর দুই আসামী পলাতক থাকায় তাদের আটকে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।


© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এনপিনিউজ৭১.কম
Developed BY Rafi It Solution