সোমবার, ১৫ Jul ২০২৪, ০৮:৩৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
এবারও রংপুরে সর্বোচ্চ করদাতা হলো দুইভাই তৌহিদ-তানবীর জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান মোস্তফার সাথে মহানগর জাতীয় হকার্স শ্রমিক পার্টির সৌজন্য স্বাক্ষাত জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান মোস্তফার সাথে সদর উপজেলা জাতীয় পার্টির সৌজন্য স্বাক্ষাত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মিঠাপুকুর (রংপুর-৫) আসনে জাপার প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন আনিছুর রহমান আনিস রংপুর রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি রাজু সাধারণ সম্পাদক মাজহার নির্বাচিত অসত্য সংবাদ অপসারণের দাবি জাতীয় পার্টির শারর্দীয় দূর্গা পূজা উপলক্ষে রংপুর সিটি কর্পোরেশনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত রংপুরে অস্ত্র ও মাদকসহ মেরিল সুমন, ব্ল্যাক রুবেলসহ পাঁচ শীর্ষ সন্ত্রাসী গ্রেফতার। প্রধানমন্ত্রী তনয়া সায়মা ওয়াজেদের ভিজিটিং কার্ড চেয়ে নিয়েছেন মার্কিট প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন: পররাষ্ট্র মন্ত্রী। লালমনিরহাটে এক সাথে তিন সন্তানের জন্ম দিয়েছেন এক গৃহবধূ।
সততার সাথে নিষ্ঠার সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ নিয়ে নিরলস ভাবে কাজ করবো.. রসিক মেয়র মোস্তফা

সততার সাথে নিষ্ঠার সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ নিয়ে নিরলস ভাবে কাজ করবো.. রসিক মেয়র মোস্তফা

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
রংপুর সিটি কর্পোরেশনের দ্বিতীয় বারের মত নির্বাচিত মেয়র মোঃ মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা বলেছেন, রংপুরের মানুষের আস্থার মান যেন রাখতে পারি, সেটাই আমরা চেষ্ঠা করবো ইনশাআল্লাহু। দ্বিতীয়বারের মেয়াদে নির্বাচিত হওয়া মানে এইটা না, যে আকাশ কুসুম চিন্তা করা। আমি মনে করি আমার দায়িত্ব আরো অনেক বেড়ে গেছে। আমি আরো সততার সাথে নিষ্ঠার সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ নিয়ে, রংপুরকে একটা উন্নত সিটির যে প্রত্যায়, সেই প্রত্যায় বাস্তবায়নের জন্য নিরলসভাবে কাজ করবো।
জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য, রংপুর মহানগর সভাপতি মোঃ মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা দ্বিতীয় বারের মত রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র হিসেবে গত (৩১ জানুয়ারী) মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে শপথ গ্রহণ করে গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে রংপুর সিটি কর্পোরেশনে এসে পৌছে উপস্থিত সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।
রসিক মেয়র মোস্তফা বলেন, রংপুরের উন্নয়নের জন্য আমাদের যে প্রকল্পগুলো সাবমিট করা আছে, এর মধ্যে ১৬শ’ ৮ কোটি টাকার একটি ডিপিপি সাবমিট করা আছে। এই প্রকল্পটা পাস করা। এর পরে আর একটা শ্যামা সুন্দরী প্রজেক্টসহ বেশ কয়েকটি প্রজেক্ট আছে। আমরা প্রাথমিক পর্যায়ে এই প্রজেক্টগুলো পাস করায় নিয়ে আমরা যাত্রা শুরু করবো। পরে পর্যাক্রমে রংপুরের উন্নয়ন ধারাবাহিকভাবে চলবে ইনশাআল্লাহু। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমার প্রতি অস্থাশীল। আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে আপনাদের মাধ্যমে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। রংপুর আপনার আমার সবার। এটা মেয়রের একার না। আমরা চাই সবার সহযোগিতায় নিয়ে দলমত নির্বিশেষে শপথ নিয়ে রংপুরকে এগিয়ে নিয়ে যাবো।
এর আগে মেয়র মোস্তফার গাড়ীর একটি বহর নগরীর প্রবেশদ্বার দমদমায় এসে পৌছালে জাতীয় পার্টির নেতা-কর্মী, সমর্থকসহ নগরীর বিভিন্ন শ্রেণী পেশার কয়েক হাজার মানুষ পুষ্পমাল্য প্রদান ও ফুল ছিটিয়ে অভ্যর্থনা জানান। এ সময় প্রায় দুই কিলো জুড়ে কয়েক হাজার মোটর সাইকেল শোভাযাত্রা দিয়ে তাকে বরণ করেন তারা। কয়েক হাজার মোটর সাইকেল শোভাযাত্রাটি নগরীর কলেজ রোডস্থ খামার মোড়ে এসে পৌছালে স্থানীয় নারী, পুরুষসহ সর্বস্তরের মানুষ তাকে ফুল ছিটিয়ে বরণ করেন। পরে শোভাযাত্রাটি রংপুর সিটি কর্পোরেশনে এসে পৌছান।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান ও রংপুর মহানগর সাধারণ সম্পাদক এস এম ইয়াসির, জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান ও রংপুর জেলার আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আবুল মাসুদ চৌধুরী নান্টু, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও রংপুর জেলার সদস্য সচিব হাজী আব্দুর রাজ্জাক, জাতীয় পার্টি রংপুর মহানগর কমিটির সহ-সভাপতি লোকমান হোসেন, জাহেদুল ইসলাম, রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রুহুল আমীন মিঞা, হিসাব রক্ষক কর্মকর্তা হাবিবুর রহমান, জাতীয় যুব সংহতি রংপুর জেলার সভাপতি হাসানুজামান নাজিম, সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম (চেয়ারম্যান), জাতীয় যুব সংহতি রংপুর মহানগর সভাপতি শাহিন হোসেন জাকির, জাতীয় ছাত্র সমাজ রংপুর জেলার সভাপতি আরিফুল ইসলাম, জাতীয় ছাত্র সমাজ রংপুর মহানগর সভাপতি ইয়াসির আরাফাত আসিফ, সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, যূগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, জাতীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টি রংপুর মহানগর আহবায়ক ফারুক হোসেন মন্ডল, সদস্য সচিব মাসুদ রানা বিপু, জাতীয় শ্রমিক পার্টি রংপুর মহানগর সভাপতি রাজু আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মজাহারুল ইসলাম মন্টু, ১৬নং ওয়ার্ড জাতীয় পার্টির সভাপতি সেকেন্দার আলী, ৩০নং ওয়ার্ড জাতীয় পার্টির সভাপতি কাজী রবি, ৩১নং ওয়ার্ড জাতীয় পার্টির সভাপতি ও কাউন্সিলর শামসুল হক, সাধারণ সম্পাদক হারুন অর রশিদ, আহেদ দেওয়ান ভুট্টু, ৩২নং ওয়ার্ড জাতীয় পার্টির সভাপতি আলতাফ হোসেন, জাতীয় অটো শ্রমিক পার্টি রংপুর মহানগর সভাপতি তসলিম উদ্দিন প্রধান উচ্ছল, সাধারণ সম্পাদক মাসুদ রানা মিলনসহ জাতীয় পার্টি রংপুর জেলার বিভিন্ন উপজেলা ও মহানগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ডের নেতৃবৃন্দ এবং অঙ্গ সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
এছাড়াও মেয়র মোস্তফার পিতা আলহাজ্ব মোঃ মামদুহুর রহমান, সহধর্মীরি মোছাঃ জেলি রহমান, ছোট কন্যা জারিন তাসমিন ও ছোট ভাই আনিছুর রহমান আনিছ তার সফর সঙ্গী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2023
Developed BY Rafi IT